top news 24

সাভার প্রতিনিধি

আশুলিয়ায় গরু ব্যবসায়ীকে কুপিয়ে প্রায় ১৫ লাখ টাকা লুট হওয়ার ঘটনায় দুই ডাকাত সদস্যকে আটক করেছে ঢাকা উত্তর গোয়েন্দা পুলিশ (ডিবি)। ইতিমধ্যে ঘটনার সত্যতা স্বীকার করে গ্রেপ্তার হওয়া ডাকাতরা আদালতে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দী দিয়েছে।

তাদের আদালতে হাজির করলে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দী দেয়। এর আগে রবিবার দুপুর থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত রাজবাড়ীর মহারাজপুর ও আশুলিয়ার ভাদাইল এলাকায় অভিযান চালিয়ে তাদের আটক করা হয়।আটকরা হলেন রাজবাড়ি জেলার মধুখালি এলাকার জালাল কাজীর ছেলে ইয়াসিন শেখ ওরফে ইমরান শেখ (৩০)। তার বাবা জামাল কাজীসহ তিন ভাই ডাকাত সদস্য বলে জানা গেছে। ইয়াসিন ডাকাতির আড়ালে আশুলিয়া জামগড়া এলাকার রিকশাচালক ছিল। অপরজন সিরাজগঞ্জ জেলার সোলঙ্গা থানার রহমত আলীর ছেলে আকাশ (২৮)। সে আশুলিয়ার ভাদাইল এলাকার ময়লা শ্রমিক। 

 গত ২২ জুলাই রাত ৮টার দিকে আশুলিয়ার খেজুরবাগান এলাকার গরুর হাটে মোট ১৪ লাখ ৯০ হাজার টাকার গরু বিক্রি করেন আমজাদ হোসেন ও আবু সাইদ। গরু বিক্রির টাকা নিয়ে নিজস্ব প্রাইভেটকার নিয়ে ঢাকার ধামরাইয়ে নিজ বাড়িতে ফিরছিলেন। গাড়িটি আশুলিয়ার শ্রীখন্ডিয়া এলাকার রসায়ন মোড়ের ঢালাই রাস্তার মোড়ে পৌঁছলে রাস্তায় বেরিকেট দেখতে পেয়ে গাড়ি থামায় চালক। এসময় কয়েকজন ডাকাত রাস্তার পাশ থেকে এসে গাড়ির দরজার কাঁচ ভেড়ে তাদের কাছে থাকা ১৪ লাখ ৯০ হাজার টাকা লুট করার চেষ্টা করে। টাকা দিতে রাজি না হওয়ায় আমজাদ হোসেন ও আবু সাইদকে দেশীয় অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে টাকা লুট করে পালিয়ে যায় ডাকাতরা।

এ ঘটনায় অভিযোগ দায়ের করলে ডাকাতদের আটকের জন্য মাঠে নামে ডিবি পুলিশ। উন্নত প্রযুক্তি ব্যবহার করে প্রথমে রাজবাড়ীর মহারাজপুর এলাকা থেকে ইয়াসিন শেখ ও পরে আশুলিয়ার ভাদাইল এলাকা থেকে তাদের আটক করা হয়। এসময় ডাকাতির ১০ হাজার ৭০০ টাকা ও ডাকাতির সময় ব্যবহার করা রাম দা উদ্ধার করা হয়েছে। 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here