top news 24

মোরেলগঞ্জ প্রতিনিধি

বাগেরহাটের মোরেলগঞ্জে বন্দুক নিয়ে বিবাদমান জমি দখলে যাওয়ার অভিযোগ উঠেছে এক যুবলীগ নেতার বিরুদ্ধে। এমন ঘটনার কিছু ছবি ও ভিডিও ভাইরাল হয়েছে।

সোমবার হোগলাবুনিয়া ইউনিয়নের ছোটবাদুরা গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনার প্রতিবাদে আজ উপজেলা সদরে বিক্ষোভ মিছিল ও প্রেস ক্লাবের সামনে মানববন্ধন করেছেন ভুক্তভোগী গ্রামবাসী।

জানা গেছে, ছোটবাদুরা গ্রামের জবেদা খাতুনের সাথে ১.৫৬ একর জমি নিয়ে আদালতে মামলা চলে একই গ্রামের সাখাওয়াত ফরাজীর সাথে। মামলায় জবেদা খাতুনের পক্ষে রায় হয়। সেই বুনিয়াদে জবেদা খাতুনের ছেলে আলী হোসেন ও তার স্ত্রী বকুল বেগম জমি চাষ করেন। গত সোমবার ওই জমিতে ধান কাটতে গেলে সাখাওয়াত ফরাজীর ভাতিজা যুবলীগ নেতা মেহেদী হাসান ওরফে বাবু ফরাজী তার পিতার বন্দুক নিয়ে ধাওয়া করেন আলী হোসেন ও তার স্ত্রী সন্তানদেরকে। এক পর্যায়ে দুই রাউন্ড ফাকা গুলি ছোড়েন। ওই সময় বাবুর সহযোগীরা বকুল বেগম, তার ছেলে সাইফুল ও দেবর মোশারেফকে পিটিয়ে গুরুতর আহত করে।

এ বিষয়ে নিজেকে ৬নং ওয়ার্ড যুবলীগের সভাপতি দাবি করে বাবু ফরাজী বলেন, জমি আমাদের দখলে। ওখানে বন্দুক নিয়ে যাওয়া বা কোন প্রকার গুলির ঘটনা মিথ্যা। অপরদিকে উপজেলা যুবলীগের আহ্বায়ক মোজাম্মেল হক বলেন, বাবু ফরাজী ওয়ার্ড যুবলীগের কর্মী তবে সভাপতি নন।
এ ঘটনায় মঙ্গলবার দিবাগত মধ্যরাতে ১০ মিনিটের ব্যবধানে উভয় পক্ষের দুটি অভিযোগ এজার হিসেবে গ্রহণ করেছে থানা পুলিশ। জমির বিরোধ নিয়ে দুই পক্ষে মারপিটের ঘটনা ঘটেছে। তবে ঘটনাস্থলে বন্দুক নিয়ে যাওয়া বা ফাঁকাগুলির বিষয়ে এখন পর্যন্ত কোন প্রমাণ পাওয়া যায়নি। তদন্ত চলছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here