top news 24

নোয়াখালী প্রতিনিধি

নোয়াখালীর সেনবাগে এক গৃহবধূকে (৩২) গণধর্ষণের অভিযোগে ইউপি সদস্যসহ পাঁচজনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ। বৃহস্পতিবার রাতে ১১ জনকে আসামি করে নির্যাতিতা বাদী হয়ে সেনবাগ থানায় মামলা দায়ের করলে পুলিশ পাঁচজনকে গ্রেফতার করে।

গ্রেফতারকৃতরা হলেন উপজেলার বীজবাগ ইউনিয়নের ইউপি সদস্য ছিদ্দিক এবং ধর্ষণের দায়ে অভিযুক্ত স্থানীয় দিদার, গফুর ও সেলিম, আলমগীর।

থানা সূত্রে জানা যায়, গত ৭/৮দিন পূর্বে ওই গৃহবধূ পারিবারিক কলহের কারণে রাগ করে কোম্পানীগঞ্জস্থ তার বাবার বাড়ি চলে যান। ৫ সেপ্টেম্বর তার স্বামীর বন্ধু দিদারকে বিষয়টি জানাতে ফেনীতে যান ওই নারী। এক পর্যায়ে দিদার রাতে সেনবাগ তার স্বামীর বাড়িতে তাকে পৌঁছে দেবার কথা বলে সেনবাগ নিয়ে যান। কিন্তু তাকে তার স্বামীর বাড়িতে পৌঁছে না দিয়ে দিদার জোরপূর্বক একটি নির্জন স্থানে নিয়ে যায়। পরে সেখানে দিদারসহ আরো তিনজন মিলে তাকে ধর্ষণ করে।
পরের দিন ওই নারী বিষয়টি স্থানীয় ইউপি সদস্য ছিদ্দিককে জানালে ইউপি সদস্যসহ শালিসদাররা উল্টো ওই নারীকে খারাপ আখ্যা দিয়ে মারধর করে পুনরায় বাপের বাড়ি পাঠিয়ে দেয়। এক পর্যায়ে গতকাল বৃহস্পতিবার রাতে গৃহবধূ বিষয়টি সেনবাগ থানায় অবহিত করলে পুলিশ রাতেই ইউপি সদস্যসহ ধর্ষণের সঙ্গে জড়িত দিদার ও তার বন্ধুদের আটক করে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here