top news 24

অনলাইন ডেস্ক

নেদারল্যান্ডে ভয়াবহ দুর্ঘটনা। তবে ভাগ্য জোরে রক্ষা পেল যাত্রীরা। নাটকীয়ভাবে এড়ানো গেছে বড় ক্ষয়-ক্ষতি। ঠিক কী ঘটেছে? ঠিক সিনেমার মতোই শেষ স্টেশনে না থেমে প্রচণ্ড গতিতে ধাক্কা মেরে স্টেশনের প্রাচীর ভেঙে বাইরে বেরিয়ে আসে একটি মেট্রো রেল।

তবে কপাল বোধ হয় একেই বলে। প্রাচীর ভেঙে বাইরে বেরিয়ে এসে শূন্যে বাসছিল ট্রেনটি, কারণ একটি তিমির লেজ! ‘তিমির লেজ’ -এর জেরেই নিচে পড়া থেকে রক্ষা পেয়েছে একটা গোটা ট্রেন। নেদারল্যান্ডসের রটারড্যাম শহরে এই দুর্ঘটনা ঘটে।

জানা গেছে, মেট্রোটি নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে গিয়েছিল। শেষে স্টেশনে এসেও ট্রেনটি না থেমে প্রাচীর ভেঙে বাইরে বেরিয়ে আসে। এতে অনেক ক্ষতিও হতে পারে। কিন্তু পুরোটাই বাঁচিয়ে দিল একটি তিমির লেজের মূর্তি। আশ্চর্যজনকভাবে ট্রেনের সামনের দিকের বগিটি এই লেজে আটকে যায়, ফলে নিচে পড়া থেকে রক্ষা পায় মেট্রো রেলটি।
জানা গেছে, ২০ বছর আগে মেট্রোর কাছে একটি পার্কে ওই তিমি মাছের শিল্প স্থাপত্যটি বানানো হয়। দুটি বড় তিমির মাছের দৈত্যাকার লেজ এই ভাস্কর্যের বৈশিষ্ট্য। এর একটি লেজ মেট্রোটিকে বাঁচিয়েছে।

মেট্রো ট্রেনের চালকও প্রাণে বেঁচে গিয়েছেন। তবে তিনি রীতিমতো শকড। উল্লেখ্য, ট্রেনে কোনও যাত্রী ছিলেন না। কেবল ড্রাইভার ছিলেন।

এই ঘটনার পরে আর্কিটেকচারস, ইঞ্জিনিয়ারেরা এবং কিছু বিশেষজ্ঞরাও ঘটনাস্থলে হাজির হন। জরুরি পরিষেবার ভিত্তিতে ট্রেনটিকে স্টেশনে ফিরিয়ে আনার চেষ্টা করা হয়।

পুলিশ জানিয়েছে, ঘটনায় কিছুটা ক্ষয়-ক্ষতি হলেও বড় মাপের ক্ষতির হাত থেকে রক্ষা পাওয়া গেছে। প্রাণহানির কোনও খবর পাওয়া যায়নি। মেট্রোটি কীভাবে নিয়ন্ত্রণের বাইরে চলে গিয়েছিল, তাও খতিয়ে দেখা হবে বলে জানানো হয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here