top news 24

বগুড়ার সারিয়াকান্দি উপজেলা থেকে সরকারি ত্রাণের চাল নৌকায় করে কালোবাজারে পাচারের সময় ধুনট উপজেলার যমুনা নদীর শহড়াবাড়ি ঘাট এলাকা থেকে ৩ হাজার ২৯০ কেজি ওজনের ৯৩ বস্তা চাল সহ আওয়ামী লীগ ও যুবলীগের দুই নেতাকে আটক করেছে ধুনট উপজেলা প্রশাসন।

আটককৃতরা হলো চুনিয়াপাড়া গ্রামের মনছের আলীর ছেলে সারিয়াকান্দি উপজেলার বোহাইল ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি মজনু মন্ডল (৪৫) ও ধুনট উপজেলার শিমুলবাড়ি গ্রামের আফসার মন্ডলের ছেলে গোসাইবাড়ি ইউনিয়ন যুবলীগের অর্থবিষয়ক সম্পাদক আল আমিন (৩৮)। বুধবার সন্ধ্যা ৬টা থেকে রাত সাড়ে ১২টায় পর্যন্ত ধুনট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সঞ্জয় কুমার মহন্তের নেতৃত্বে ধুনট থানা পুলিশ এ অভিযান পরিচালনা করেন। 

স্থানীয় সূত্রে জানা গেছে, সারিয়াকান্দি উপজেলা থেকে ভিজিএফসহ সরকারি ত্রাণের ১৫০ বস্তা চাল কমদামে কিনে বুধবার সন্ধ্যা ৬টায়  নৌকায় করে যমুনা নদীর ধুনট উপজেলার শহরাবাড়ি ঘাটে নিয়ে যায় আওয়ামী লীগ নেতা মজনু মন্ডল ও যুবলীগ নেতা আল আমিন। সেখান থেকে তারা তিনটি ভটভটিতে ৫১ বস্তা চাল অন্যত্র পাচার করেন।

এদিকে ঘটনার সংবাদ পেয়ে ধুনট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সঞ্জয় কুমার মহন্তের নেতৃত্বে ধুনট থানার ওসি কৃপা সিন্ধু বালা সেখানে অভিযান পরিচালনা করে আওয়ামী লীগ নেতা মজনু মন্ডল ও যুবলীগ নেতা আল-আমিনকে আটক করে। পরে তাদের স্বীকারোক্তি অনুযায়ি ধুনট উপজেলা প্রশাসন অভিযান চালিয়ে যমুনা নদীর মাঝপথের নৌকা থেকে ভিজিএফ সহ সরকারি ত্রাণের ৩০ কেজি ওজনের ২৪ বস্তা ও ৫০ কেজি ওজনের ১৮ বস্তা চাল উদ্ধার করে।

এছাড়া চুনিয়াপাড়া এলাকার একটি গোডাউন থেকে ৩০ কেজি ওজনের ৪৪ বস্তা ও ৫০ কেজি ওজনের আরো ৭ বস্তা চাল উদ্ধার করা হয়।  বগুড়ার ধুনট উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) সঞ্জয় কুমার মহন্ত জানান, সরকারি ত্রাণের চাল পাচারের সময় ৩ হাজার ২৯০ কেজি ওজনের ৯৩ বস্তা চালসহ দুই ব্যক্তিকে আটক করে পুলিশে সোপর্দ করা হয়েছে। 

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here