top news 24

অনলাইন ডেস্ক

তার বিচারবিভাগীয় হেফাজতের মেয়াদ শেষ হয়েছিল। কিন্তু ছাড়া পেলেন না। মঙ্গলবার (২২ সেপ্টেম্বর) মুম্বাইয়ের এক আদালত জানিয়ে দিল, ৬ অক্টোবর পর্যন্ত জেলেই থাকতে হবে রিয়া চক্রবর্তীকে। তার ভাই শৌভিক এবং তিনি জামিনের আবেদন করেছেন। বুধবার সেই মামলার শুনানি।

গত ৯ সেপ্টেম্বর গ্রেফতার করা হয় রিয়াকে। অভিযোগ, সুশান্তকে মাদক সংগ্রহ করে দিতেন তিনি। রিয়ার ভাইকেও গ্রেফতার করা হয়েছে। রিয়াকে এই মাসের শুরুতে টানা তিন দিন জেরা করা হয়। তারপর জানা যায়, ‌একটি মাদক সিন্ডিকেটের সক্রিয় সদস্য ছিলেন তিনি।

গত ১৪ জুন বান্দ্রার ভাড়ার ফ্ল্যাট থেকে উদ্ধার হয় সুশান্ত সিং রাজপুতের ঝুলন্ত দেহ। পাটনার একটি থানায় সুশান্তের বান্ধবী রিয়ার বিরুদ্ধে এফআইআর করেন তার বাবা কে কে সিং। অভিযোগ, সুশান্তের টাকা নয়-ছয় করেছেন তিনি। আত্মহত্যায় প্ররোচনা দিয়েছেন। বিহারের মুখ্যমন্ত্রী নীতীশ কুমার এই মামলায় তদন্তভার সিবিআইকে দেন। সিবিআইয়ের পাশাপাশি ইডিও তদন্তে নামে।
এরপর রিয়ার একটি হোয়্যাটসঅ্যাপ চ্যাট থেকে মাদকযোগের বিষয়টি উঠে আসে। তদন্তে নামে এনসিবি। অভিযোগ ওঠে, রিয়া সুশান্তের জন্য মাদক জোগার করে দিতেন। রিয়া, তার ভাই শৌভিক, সুশান্তের দুই সহকারী সহ ১০ জনকে গ্রেফতার করেছে এনসিবি। রিয়ার জামিন নাকচ করেছে মুম্বাইয়ের এক আদালত।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here